ওরা বলে, হারাম রিলেশন (বিয়েবহির্ভূত প্রেম) না রাখা জঙ্গিবাদের লক্ষণ।

ওরা বলে, হারাম রিলেশন (বিয়েবহির্ভূত প্রেম) না রাখা জঙ্গিবাদের লক্ষণ।
আমার রাসূল সল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেন,
“মেয়েরা মাহরাম (যার সঙ্গে বিবাহ নিষিদ্ধ) ব্যতীত অন্য কারো সাথে সফর করবে না। মাহরাম কাছে নেই এমতাবস্থায় কোন পুরুষ কোন মহিলার নিকট গমন করতে পারবে না।” [১]
___
ওরা বলে, গানবাজনা ছেড়ে দেওয়া জঙ্গিবাদের লক্ষণ।
আমার রাসূল সল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেন,
“আমার উম্মতের মধ্যে এমন কিছু লোক সৃষ্টি হবে, যারা ব্যভিচার, রেশম, মদ ও বাদ্যযন্ত্রকে হালাল সাব্যস্ত করবে।” [২]
___
ওরা বলে, “শুদ্ধভাবে সালাম উচ্চারণ জঙ্গিবাদের লক্ষণ।”
অপরদিকে আমার আল্লাহ আদম (আ:) কে শুদ্ধভাবে সালাম শিখিয়েছেন।
হজরত আবু হুরায়রা (রা.) থেকে বর্ণিত। রাসূলুল্লাহ সল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন, আল্লাহ তাআলা হযরত আদম (আ.)–কে সৃষ্টি করে বলেন, যাও ফেরেশতাদের সালাম দাও এবং তারা তোমার সালামের কী উত্তর দেয়, মন দিয়ে শোনো। এটিই হবে তোমার এবং তোমার সন্তানদের সালাম। সে অনুযায়ী হজরত আদম (আ.) গিয়ে ফেরেশতাদের বলেন, ‘আসসালামু আলাইকুম’, (অর্থ: ‘আপনাদের ওপর শান্তি বর্ষিত হোক।’) ফেরেশতারা উত্তরে বলেন, ‘আসলামু আলাইকা ওয়া রহমাতুল্লাহ’, (অর্থ: ‘আপনার ওপর শান্তি এবং আল্লাহর রহমত বর্ষিত হোক।’) [৩]
___
ওরা বলে, টাখনুর ওপরে প্যান্ট পরা জঙ্গিবাদের লক্ষণ।
আর আমার রাসূল বলেন,
“ইযার বা পরিধেয় বস্ত্রের যে অংশ পায়ের টাখনুর নীচে থাকবে, সে অংশ জাহান্নামে যাবে।” [৪]
___
ওরা বলে, ধর্মীয় বিষয়ে পড়াশোনার মনোযোগ ‘অস্বাভাবিকভাবে’ বৃদ্ধি পাওয়া জঙ্গিবাদের লক্ষণ।
কিন্তু আমার রাসূল বলেন,
“প্রত্যেক মুসলিমের উপর ইলম অর্জন করা (ধর্মীয় বিষয়ে পড়াশোনা) ফরয।” [৫]
___
ওরা বলে, ধর্মীয় উপদেশমূলক কথাবার্তা বলা জঙ্গিবাদের লক্ষণ।
আর আমার রাসূল সল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেন,
“সদুপদেশ দেয়াই হচ্ছে দ্বীন।” [৬]
___
ওরা বলে, শরীয়াহ আইন প্রতিষ্ঠিত করার প্রতি অতি আগ্রহ প্রকাশ করা জঙ্গিবাদের লক্ষণ।
অপরদিকে আমার আল্লাহ সুবহানাহু ওয়া তাআলা বলেন,
“সেই আল্লাহ এমন যে, তিনি নিজ রাসূলকে হিদায়াত (কুরআন) এবং সত্য ধর্ম সহকারে প্রেরণ করেছেন, যেন তা সকল ধর্মের ওপর বিজয়ী করতে পারেন, যদিও মুশরিকরা তা অপছন্দ করে।” [৭]
___
এবার ভাবুন। প্লিজ একটু ভাবুন। মনোযোগ দিয়ে ভাবুন, ওরা আসলে জঙ্গিবাদ বলতে কী বোঝাতে চায়। ওরা সন্ত্রাসকে বোঝাতে ‘জঙ্গিবাদ’ শব্দটা ব্যবহার করে না৷ ওরা ‘জঙ্গিবাদ’ দ্বারা মূলত পুরো ইসলামকেই বোঝায়৷ ওদের চোখে ইসলামই জঙ্গিবাদ। হ্যাঁ, ইসলামই জঙ্গিবাদ এবং মুসলমানরাই জঙ্গি।
আপনি কি তাদের দেখেছেন মুসলিম ছাড়া আর কাউকে জঙ্গি বলতে?
.
তথ্যসূত্র :
[১] সহিহ বুখারী : ১৮৬২
[২] সহিহ বুখারী হাদীস: ৫৫৯০
[৩] মিশকাতুল মাসাবীহ: ৪৬২৮
[৪] সহিহ বুখারী: ৫৭৮৭
[৫] সুনানে ইবনে মাজাহ: ২২৪
[৬] সহিহ মুসলিম: ১০০
[৭] সূরা তাওবা: ৩৩

?রাগিব হাসান

Related Post

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *